Sunday, November 27, 2022
Homeখবরবর্ধমান জেলা পুলিশের 'স্নেহ'র পরশে হাসি ফুটলো পথশিশুদের মুখে

বর্ধমান জেলা পুলিশের ‘স্নেহ’র পরশে হাসি ফুটলো পথশিশুদের মুখে

আমার বাংলা ওয়েব, বর্ধমান, ২৪ মে :
বর্ধমান জেলা জুড়ে একদিকে চলছে লকডাউন অন্যদিকে ঘূর্ণিঝড় যশের আতংক।  সব মিলিয়ে ফুটপাথে রাত কাটানো মানুষজন সবচেয়ে বেশি আতঙ্কগ্রস্থ হয়ে পড়েছেন৷ এই দুদিন কীভাবে খাবার মিলবে সেই উত্তর তাদের জানা নেই। তাদের কথা চিন্তা করে ‘স্নেহ’র মাধ্যমে  তাদের পাশে দাঁড়ালো পূর্ব বর্ধমান জেলা পুলিশ।

বর্ধমান জেলা পুলিশের 'স্নেহ'র পরশে হাসি ফুটলো পথশিশুদের মুখে

 

 

 

 

সোমবার জেলা পুলিশ ও বর্ধমান থানার উদ্যোগে বর্ধমান স্টেশনে থাকা পথ শিশুদের হাতে তুলে দেওয়া হল শুকনো খাবার। মোট দুশো জন শিশুর হাতে প্যাকেট করা খাবার তুলে দেন জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কল্যাণ সিংহরায়, ডিএসপি হেডকোয়ার্টার সৌভিক পাত্র, আই সি পিন্টু সাহা সহ অন্যান্য পুলিশ আধিকারিকেরা।

বর্ধমান জেলা পুলিশের 'স্নেহ'র পরশে হাসি ফুটলো পথশিশুদের মুখে

 

 

 

 

বর্ধমান জেলা পুলিশের ‘স্নেহ’র পরশে হাসি ফুটলো পথশিশুদের মুখে

এছাড়া এদিন থানার উদ্যোগে ৫০০ জন শিশুর হাতে খাদ্য সামগ্রী তুলে দেওয়া হয়। এদিন জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে প্রতিটি মানুষকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে মাস্ক ব্যবহার করতে আবেদন জানানো হয়।

বর্ধমান জেলা পুলিশের 'স্নেহ'র পরশে হাসি ফুটলো পথশিশুদের মুখে

 

 

 

 

কঠিন পরিস্থিতিতে জেলা পুলিশ তাদের পাশে দাঁড়ানোয় খুশি এখানে সেখানে রাত কাটানো মানুষজন।  তাদের মতে জেলা পুলিশ যেভাবে আমাদের ছেলেমেয়েদের কথা ভেবে এগিয়ে এসেছে তাতে আমরা খুশি।

জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কল্যাণ সিংহরায় বলেন, ‘ করোনা পরিস্থিতির জন্য সাধারণ মানুষের জীবনযাত্রা ব্যাহত হচ্ছে। করোনা মোকাবিলায় রাজ্য সরকার আংশিক লকডাউন ও বেশ কিছু বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। যেগুলো মানুষকে মেনে চলতে হচ্ছে। এছাড়া ঘূর্ণিঝড়ের কারণে একটা দুর্যোগের সম্ভাবনা রয়েছে। এরমধ্যে জেলা পুলিশের পৃষ্ঠপোষকতায় থানার উদ্যোগে কিছু মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে পুলিশ।  তার অঙ্গ হিসেবে থানার পক্ষ থেকে কিছু মানুষের হাতে খাদ্য সামগ্রী তুলে দেওয়া হয়। বিগত দিনগুলোর মতো মানুষের পাশে দাঁড়াতে আমরা বদ্ধপরিকর। ‘

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

RELATED ARTICLES

সাম্প্রতিক খবর

মন্তব্য